ধর্ম বর্ণ নির্বিশেষে অবশেষে মুখ খুললেন নুসরাত জাহান!

0
nusrat jahan says every religion is no different
নুসরাত জাহানের বক্তব্য

হাজার সংবাদ ডেস্ক: অবশেষে ধর্ম-বর্ণ-নির্বিশেষে মুখ খুললেন টেলি তারকা সংসদ নুসরাত জাহান। তিনি নিখিল জৈনকে বিয়ে করেছেন এবং এই দম্পতি নিয়ে বারবার প্রশ্ন তুলেছে ধর্মাবলম্বীরা। অনেক বারই তাদের দিকে প্রশ্ন ছুড়ে দিয়েছে কিন্তু তাতেও তিনি কোনো রকম ভাবে মুখ খোলেননি অর্থাৎ সংসদ নুসরাত কোন রকম ভাবেই তিনি তার নিয়ে ওঠা কটুক্তি তে অন্যদের কে কটুক্তি করে তিনি কোন মত প্রকাশ করেননি। তিনি চুপচাপই অনেকবারই সবকিছু মেনে নিয়েছেন। কিন্তু আজ এক রাজনৈতিক সম্মেলনে আসার পর সেখানে তিনি এটার প্রতিবাদ করেছেন। তিনি জানিয়েছেন “লভ এবং জিহাদ” কখনোই পাশাপাশি বসার নয়। তবে রাজনীতিতে কখনো ভালোবাসা এবং ধর্মকে করে ফেলবেন না। যেখানে রাজনীতি আছে সেখানে কখনো ভালোবাসা এবং ধর্ম এগুলোকে এক নয়। তাই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের রাজ্যে ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সমস্ত কিছুই চলতে পারে সেখানে ধর্ম বলে কিছু নেই। মানুষ হয়ে ভালোবাসা এবং নিজেদের ধর্ম দিয়ে আলাদা করে রাখবেন না। প্রত্যেকটা মানুষ নিজেদেরকে ভালোবাসা দিয়ে ভরিয়ে রাখুন।

আপনি মুসলিম কি আপনি হিন্দু সেটা বড় কথা নয়। এর আগে বেশ কিছু নাটকে ছিল যারা এক মুসলিম পুত্রবধূ অর্থাৎ হিন্দু ঘরের মেয়ে মুসলিম ঘরে পুত্রবধূ হয়েছিল এবং জাঁকজমকভাবে তাদেরকে সাধের অনুষ্ঠান করা হয়েছিল এবং তাতে বেশ কিছু নাগরিক যথেষ্ট রকমভাবে মন্তব্য তুলে ধরেছিল। নুসরাত জাহান এবং নিখিলের দিকে। কিন্তু সেখানেও তিনি মুখ খোলেননি। এরপর এক গোল্ড বিক্রেতার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হিসেবে নিখিল এবং নুসরাত জাহান অ্যাডভার্টাইজমেন্ট করেছিল। সেখানে বারবার প্রশ্ন তুলে ধরেছিল যারা কিনা কোন রকম ভাবে নিজেদের ধর্ম বর্ণ নির্বিশেষে বজায় রাখতে পারেনা তাদেরকে দিয়ে এই অ্যাডভার্টাইজমেন্ট করানোর কোন মানে হয় না। সেই প্রসঙ্গে নুসরাত জাহান সেদিনের সম্মেলনে জানিয়েছে জাতি-ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে কখনো ভালোবাসা হয় না ভালোবাসা হয় নিজের মন থেকে। সরিয়ে রাখুন রাজনীতিতে কখনো কোন ধর্ম এবং ভালোবাসা বিরাজ করে না তাছাড়া মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের রাজ্যে ধর্ম নির্বিশেষে হিসেবে ধরা হয়।

তিনি প্রথমত এক মুসলিম অভিনেত্রী। শুধু তাই নয় তিনি যেহেতু মুসলিম ধর্মে বিরাজ করে তাই তিনি লভ এবং জিহাদ এই দুটো কথা পাশাপাশি বসতে পারে বলে মনে করেন না এবং তিনি মনে করেন এই রাজ্যে এতদিন যাবৎ কখনো ধর্ম বর্ণ নির্বিশেষে আলাদাভাবে বিচার করা হয়নি। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় অন্তত সেরকম ভাবে কোনও কথা বলেনি। তাই এই জায়গায় এসে আমি কোন ধর্মে বিয়ে করলাম কিংবা আমি কোন ধর্মে গেলাম সেখানে ধর্মের স্থানান্তরিত হওয়ার কথা নয়। নিজের মন থেকে আমি সমস্ত ধর্মকে বিশ্বাস করি এবং সমস্ত ধর্মকে সম্মান করি আমার কাছে কিবা হিন্দু আর কিবা মুসলিম। আমার তাতে কোন অসুবিধা নেই। তিনি জানিয়েছেন এই কথা এবং তার সাথে সাথে তিনি যে ধর্মেই থাকুক না কেন তিনি প্রত্যেক ধর্মকে স্যালুট জানিয়েছে এবং প্রত্যেক ধর্মের হয়ে তিনি বলেছেন যে লভ এবং জিহাদ কথাটি কখনো পাশাপাশি বসে না। এই কথাটি সব সময় অভিন্ন। এই কথাটির অর্থ ভিন্ন।

একটি মন্তব্য করুন...

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন