নিজের স্বার্থে নেপুটিজম কথাটা সুশান্তের মৃত্যুর সাথে জড়াচ্ছে কঙ্কনা! মত সুশান্ত পরিবারের আইনজীবী বিকাশ সিং

0
Kangana Ranaut's statement is wrong
কঙ্কনা রাওয়াত

হাজার সংবাদ ডেস্ক: জুন মাসের 14 তারিখে সুসান সিং এর মৃত্যুর পর থেকে একের পর এক নতুন তথ্য সামনে এসেছে। সুসান্ত সিং এর শুভাকাঙ্ক্ষী ও অনুরাগীরা সুসানন্ত সিং এর মৃত্যু নিয়ে কটাক্ষে জানিয়েছিল সেটি আত্মহত্যা নয় প্রবঞ্জনা করে তাকে খুন করা হয়েছে। কিংবা তাকে মৃত্যুর প্রবঞ্চনা দিয়ে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দেওয়া হয়েছে। আবার কেউ কেউ জানিয়েছিল যে এটা অভিনয় জগতের নেপুটিজম শিকার হয়েছিল সুসান্ত সিং। তার কারণে অবসাদে মধ্য দিয়ে তিনি আত্মহত্যা করেছিলেন।

তা নিয়ে ঝড় উঠেছিল। টলিউড থেকে বলিউড কাঁপিয়ে দিয়েছে প্রশ্নের যে কটাক্ষ করেছ বিভিন্ন অভিনেত্রী অভিনেতা জীবনে তা নিয়েও অনেকে প্রশ্ন তুলেছে। বহুবার তারা জানিয়েছে নেপোটিজম রয়েছে টলি ফিল্ম বলি ফিল্মে তাই সুসান্ত সিং তার শিকার হয়েছে। প্রতিভা থাকার সত্ত্বেও তিনি সুযোগ পাননি বড় বড় কোন জায়গাতে এবং অনেক মুভিতে চান্স পেয়ে সেই সুযোগ হারিয়েছেন সুশান্ত। শুধুমাত্র নেপোটিজম শিকার হয়েছে কারণ তার কোন গডফাদার নেই। এইরকম প্রসঙ্গে বহু অভিনেতা অভিনেত্রী ও নিজেদের মত প্রদান করেছেন। জানিয়েছেন যে সত্যিই সুশান্তের মর্মান্তিক মৃত্যু ভাবা যায় না শুধু তাই নয় এর আগের ইতিহাসে বহু মানুষ রয়েছেন এ প্রজন্মের শিকার হয়েছে। তারা এই প্রসঙ্গে কঙ্গনা রানাউত সুশান্ত সিং এর মৃত্যু রহস্য নিয়ে জানিয়েছেন অবশ্যই প্রতিভার বিচার করেনা বলি ফিল্ম।

আর এবার সুসান্ত সিং কে নিয়ে কঙ্গনা রানাউত যে কথা বলেছিলেন তার উপরে কটাক্ষ করে সুশান্তের পরিবার থেকে যে আইনজীবী ছিলেন তিনি জানিয়েছেন যে কঙ্গনা রানাউত নিজের স্বার্থ চরিতার্থ করার জন্য এই কথা বলছে।। সুসান্ত সিং এর মৃত্যু রহস্য কতটা সামনে আসুক সেটা তিনি চান কি জানিনা তবে নিজের জীবনের ভবিষ্যৎ প্লান ঠিকঠাক করার জন্যই তিনি এই কাজ করছেন। তিনি সুসান্ত সিং এর নাম করেই নেপোটিজম কথাটা বারবার ছুঁড়ে দিচ্ছে। কিন্তু এই মৃত্যুর সাথে জড়িয়ে নেই নেপুটিজম।

তবে এদিকে কঙ্গনা রানাউত প্রথম থেকে সুসান্ত সিং এর পরিবারের পাশে ছিলেন এবং সুসান সিং এর মৃত্যু যে সাধারণ মৃত্যু নয় সেটা তিনি বলেছে। যদিও তিনি অন্যকে দোষারোপ করার অনেক আগেই তিনি নেপোটিজম কথাটা বারবার বলেছেন। তাই পরিবারের আইনজীবী এই কথা বলেছেন। এছাড়াও তিনি জানিয়েছিলেন তিনি এটা প্রমাণ করতে না পারেন তাহলে খুব তাড়াতাড়ি তার পদ্মশ্রী সম্মানিত হয়েছিলেন সেই উপহার ফিরিয়ে দেবেন এবং তিনি প্রমাণ করে ছাড়বেন এর মধ্যে জড়িয়ে রয়েছে প্রভাবশালীদের হাতছানি তাই সুসান্ত সিং কে আত্মহত্যা করতে হয়েছিল।

কিন্তু এবারে সাধারণ মতো চিন্তা ঘুরে গেছে সুসান্ত সিং এর পরিবারের আইনজীবী জানিয়েছেন সুসান্ত সিং শুধুমাত্র নেপোটিজম এর জন্য আত্মহত্যা করেননি। বা সে নিজে আত্মহত্যা আদৌ করেনি তাকে খুন করা হয়েছে শুধু তাই নয় সুসান সিং বড় একটি প্রবঞ্চনার শিকার হয়েছিল। তার থেকেই তার এই মৃত্যু। তাঁর পরেও কঙ্গনা রানাউতের নেপোটিজম কথা জোর দিয়ে সুসান্ত সিং এর মৃত্যু তাকে প্রমাণ করার চেষ্টা করছে তার জন্য জানিয়েছেন যে নিজের স্বার্থ পুরন করার জন্য তিনি এই কথা বলছেন। এর পেছনে আদৌ তার কোনো কারণ নেই যদিও কঙ্গনা রানাউত প্রথম থেকেই সুশান্তের পরিবারের পাশে ছিলেন। কিন্তু এখনও পর্যন্ত তিনি সেভাবেই রয়েছেন তবে তিনি তার নামে যেমন ভাল কথা বলেছেন তিনি জানিয়েছেন যে কথাটা সুসান্ত সিং এর সাথে কোনভাবেই যায় না। কারণ সুশান্তের হাতে ছিল অনেক কাজ তাই এক বছরে এতগুলো কাজ সাধারণত হয় না কোন অভিনেতার। কিন্তু সে দিক থেকে সুসান্ত সিং কখনো নেপোটিজম এর জন্য আত্মহত্যা করেননি। তার পেছনে রয়েছে অনেক বড় চক্র সেটি ধরতে হবে। তবে আমার মনে হয় কঙ্গনা রানাউত নিজের স্বার্থের জন্য এ কথা বারবার বলছেন। তবে তার ভুল স্বীকার করে তিনি এবার সবার কাছে আবার নতুন করে প্রদর্শন করুক নিজেকে।

একটি মন্তব্য করুন...

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন