ডিমের গুনাগুন! কখন কিভাবে খাওয়া উচিত, শরীরে কত প্রভাব ফেলে কতটা উপকারী! জেনে নিন

0
Egg benefits of human body
ডিমের উপকারিতা

হাজার সংবাদ ডেস্ক: অনেক জিনিস আছে যা আমরা খুব মনজগ সহকারে খাই এবং পছন্দ করি। কিন্তু সেই খাবার গুলো কিভাবে খাওয়া উচিত কতটা খাওয়া উচিত তা আমরা কখন বিছার করিনা। তাই প্রোটিন খাবার খাওয়ার পরও আমাদের শরীরে অনেক সমস্যা থেকে যায়। প্রত্তেক খাবার কততা পরিমানে আমাদের শরীর কে দেওয়া উচিত তা আমাদেরকে বুঝতে হবে জানতে হবে। কোন খাবার কিভাবে খাব তাও বুঝতে হবে। তা না হলে সমস্যা নিজেদের বারে। সেই রকম এই খাবার নিয়ে আমারা আলোচনা করব আজ।

আজ আমরা ডিম নিয়ে আলোচনা করব। ডিম খেতে পছন্দ করেন না এমন মানুষ খুব কমই আছে। সকালবেলা টিফিন এর সঙ্গে হোক বা দুপুরে খাওয়ার সময় দিমের নামে খুশির ছোঁয়া। বেশীরভাগ মানুষই ভালোবাসেন ।বাচ্চাদের ও বেশ পছন্দের এই খাবার। তাই বাচ্চাদের স্কুলের টিফিনে বা নিজেদের অফিসের টিফিনে প্রায়ই ডিম সিদ্ধ দিয়ে থাকি বা ডিম দিয়ে তৈরি খাবার দেওয়া হয়। কিন্তু আমরা অনেকেই জানিনা ডিম সিদ্ধ হওয়ার পর কতক্ষন রেখে খাওয়া উচিত। ডিম সিদ্ধ করার পর দুই ঘণ্টার মধ্যে খেয়ে নিলেই ভাল কারণ ডিম তাড়াতাড়ি নষ্ট হয়ে যায় তবে সিদ্ধ করা ডিম ফ্রিজে ঠিক ভাবে যদি রেখে দিতে পারেন তাহলে ছয় থেকে সাত দিন ভালো থাকে। তবুও টাটকা খাবার চেষ্টা করবেন। তবে অবশ্যই খোসা সমেত রাখতে হবে তা কিন্তু ভুললে চলবেনা। খোসা সমেত যদি না রেখেছেন তাহলে সেটা নস্ট হয়ে যাবে।

যদি সিদ্ধ করা ফ্রিজে না রাখা হয় তাহলে সিদ্ধ করে দু ঘন্টা এর মধ্যে খেয়ে নিলেই ভালো হয়। ডাক্তাররা টাটকা জিনিসটা খাবার পরামর্শ দিয়ে থাকেন। তবে জিম দিয়ে অন্য সে সমস্ত খাবার খান সেগুল টিফিন বক্স বন্ধ অবস্থায় বেশিক্ষন রাখবেন না। ৪ ঘণ্টা মধ্যে যাতে খেয়ে নেওয়া যাই তাঁর চেষ্টা করবেন।

একটি মন্তব্য করুন...

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন