দিল্লী ভার্চুয়াল জনসভায় কটাক্ষে তৃণমূলের দিকে আঙ্গুল, অমিত শাহ

0
BJP leader amit sah
তৃণমূলের বিরুদ্ধে কটাক্ষে যুক্তি খাড়া করলো অমিত সাহ

হাজার সংবাদ ডেস্ক: জনসংবাদ র‍্যালিতে পশ্চিমবঙ্গ নিয়ে অনেক প্রশ্ন তুলেছেন অমিত শাহ। তিনি কটাক্ষে জানিয়েছেন দেশের মধ্যে পশ্চিমবঙ্গে এমন একটি রাজ্য যেখানে সব থেকে বেশি রাজনীতি দলাদলি চলে। মঙ্গলবার দিল্লি থেকে ভার্চুয়াল সভা যোগ অমিত শাহের।

তার বক্তৃতায় তিনি সরাসরি পশ্চিমবঙ্গ শাসকদলের উপর আঙ্গুল তুলেছে। পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, কেন্দ্রীয় সরকারের দেয়া সমস্ত যোজনার উপর অসহযোগিতা করেছে। দেশের এতগুলো রাজ্যের মধ্যে সব থেকে দুর্নীতিগ্রস্ত রাজ্য হল পশ্চিমবঙ্গ তা নিয়েও তিনি অভিযোগ করেছেন।

গত ছয় বছরে কেন্দ্রীয় সরকারের সমস্ত হিসেব দেওয়া হয়েছে তাহলে এবার মমতা বন্দোপাধ্যায় ১০ বছরের সমস্ত সরকারি হিসেব জ্ঞাপন করুক বলে দাবি করেছেন অমিত শাহ। জনসংবাদ র‍্যালিতে বক্তৃতা অনুযায়ী তিনি বলেন যে বাংলা কে এগিয়ে নিয়ে যেতে গেলে শাসক দলকে বদলাতে হবে।

এই দুর্যোগের দিনে ও করোনর সময়ে দুর্নীতি করেছে তৃণমূল এই বলে দাবি তার। চরম সংকটের সময় যে হিংসা ও সমস্ত সুযোগ-সুবিধা থেকে জনগোষ্ঠীকে বরাদ্দ করছে বরখাস্ত করছে তৃণমূল। কেন্দ্রের দেওয়া টাকা তোলাবাজি ও সিন্ডিকেট এ চলে যায় সেই টাকা গরীবের কাজে লাগে না। অমিত শাহের কথায় আয়ুষ্মান যোজনাতে ভারত মধ্যে অনেক ভারতীয়রা সুযোগ পেয়েছে বলে দাবি করেছেন। এছারাও রাজ্য কৃষকদের সম্পর্কেও কোন তথ্য দেন না রাজ্য সরকার। সমস্ত সুযোগ-সুবিধা থেকে বঞ্চিত করে কৃষকদের। এতদিন তৃণমূল কে দেখেছেন সিপিএম কে দেখেছেন এবার বিজেপিকে সুযোগ দিন তার দাবী।

কেন্দ্রের নানা সুবিধা থেকে বঞ্চিত করেছে রাজ্যের মানুষগুলোকে। তিনি ভেবেছেন রাজ্যের মানুষদের এই সুযোগ সুবিধা দিলে বিজেপির নাম উঠে আসবে জনসাধারণের মুখে তাই তিনি সেই সুযোগ দেন না। রাজনীতি করতে গিয়ে শুধুমাত্র বঞ্চিত হচ্ছে রাজ্যের গরিব মানুষগুলো। দেশের যে যে রাজ্যে বিজেপি এসেছে সে রাজ্যে বিকাশের রাস্তা অনেক প্রখর হয়েছে বলে দাবি করেছেন অমিত শাহ।

তিনি কটাক্ষে বলেছেন আপনি বাংলার বিকাশ রুখতে পারবেন না। এবার বন্ধ হবে রাজনৈতিক দলাদলি। সভা করতে না দিলেও ভার্চুয়াল সভার মাধ্যমে সভা করবে বিজেপি।

একটি মন্তব্য করুন...

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন